ঢাকা বৃহঃস্পতিবার, ৪ঠা মার্চ ২০২১, ২১শে ফাল্গুন ১৪২৭


ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে বাংলাদেশের সহজ জয়


প্রকাশিত:
২০ জানুয়ারী ২০২১ ১৮:২৮

আপডেট:
২০ জানুয়ারী ২০২১ ১৮:৪৮

নিউজ ডেস্কঃ ওয়েস্ট ইন্ডিজকে পাত্তাই দিল না বাংলাদেশ। বোলারদের আক্রমণাত্মক বোলিং ও ব্যাটসম্যানদের সাবলীল ব্যাটিংয়ে বড় জয় পেল টাইগাররা। বুধবার তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজের প্রথম ম্যাচে ক্যারিবীয়দের ৬ উইকেটে হারাল তামিম ইকবালের দল। করোনার কারণে দীর্ঘ ১০ মাস পর এই ম্যাচের মাধ্যমে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ফিরল বাংলাদেশ। সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচ আগামী ২২ জানুয়ারি।

এদিন মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে অনুষ্ঠিত ম্যাচটিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজের দেয়া ১২৩ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে ৩৩.৫ ওভারে ৪ উইকেট হারিয়ে জয় তুলে নেয় বাংলাদেশ। এই ম্যাচের মাধ্যমেই ওয়ানডেতে নিয়মিত অধিনায়ক হিসেবে যাত্রা শুরু করলেন তামিম।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের দেয়া ছোট টার্গেট সামনে রেখে ব্যাট করতে নেমে সাবধানী শুরু করে বাংলাদেশ। ওপেনিংয়ে ৪৭ রানের জুটি গড়েন তামিম ইকবাল ও লিটন দাস। ১৪তম ওভারে আকিলের বলে বোল্ড হয়ে ফেরেন তামিম। ৩৮ বলে ১৪ রান করেন লিটন।

ওয়ানডাউনে নেমে নাজমুল হোসনে শান্ত মাত্র ১ রান করে আকিলের শিকার হন। দলীয় ৮৩ রানে মোহাম্মদের বলে স্ট্যাম্পিং হন তামিম। ৬৯ বলে ৪৪ রান করেন টাইগার অধিনায়ক। চার নম্বরে নেমে সাকিব আল হাসান ৪৩ বলে ১৯ রান করেন।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করতে নেমে ৩২.২ ওভারে ১২২ রান করে অলআউট হয়ে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৪০ রান করেন কাইল মায়ার্স। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৮ রান করেন রভম্যান পাওয়েল।

বাংলাদেশের বোলারদের মধ্যে ৮ রান দিয়ে ৪টি উইকেট নেন সাকিব আল হাসান। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ওয়ানডেতে বাংলাদেশি বোলারদের মধ্যে এটিই সেরা বোলিং ফিগার। ওয়ানডেতে অভিষেক ম্যাচ খেলতে নামা পেসার হাসান মাহমুদ ২৮ রান দিয়ে ৩টি উইকেট নেন। এছাড়া মোস্তাফিজুর রহমান ২টি ও মেহেদী হাসান মিরাজ ১টি করে উইকেট শিকার করেন।

ওয়েস্ট ইন্ডিজ ব্যাটিংয়ে নেমে ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে প্রথম উইকেট হারায়। ওপেনার সুনিল আমব্রিসকে এলবিডব্লিউয়ের ফাঁদে ফেলেন মোস্তাফিজুর রহমান। অপর ওপেনার জশুয়া ডি সিলভাও মোস্তাফিজের শিকার হন। ষষ্ঠ ওভারে লিটন দাসের হাতে ধরা পড়েন এই ক্যারিবীয় ওপেনার।

সাকিব আল হাসান তার শিকার শুরু করেন ১৩তম ওভারে। এই ওভারে আন্দ্রে ম্যাকার্থিকে বোল্ড করেন তিনি। ১৭তম ওভারে ক্যারিবীয় অধিনায়ক জ্যাসন মোহাম্মদও সাকিবের শিকার হন। ১৯তম ওভারে বোনারকে ফিরিয়ে নিজের তৃতীয় শিকারটি করেন সাকিব।

ষষ্ঠ উইকেট জুটিতে রভম্যান পাওয়েল ও কাইল মায়ার্স ৫৯ রানের পার্টনারশিপ করেন। ৩০তম ওভারে পাওয়েলকে ফিরিয়ে এই জুটি ভাঙেন হাসান মাহমুদ। আর ৩১তম ওভারে দলীয় ১২১ রানে মায়ার্স ফেরার পর ১২২ রানে অলআউট হয়ে যায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ।



আপনার মূল্যবান মতামত দিন: